ভারত সীমান্ত লাগোয়া মিয়ানমারের ফালাম এলাকায় মাঝারি মাত্রার ভূমিকম্প হয়েছে, যা অনুভূত হয়েছে চট্টগ্রাম, ঢাকাসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন এলাকায়। যুক্তরাষ্ট্রের ভূতাত্ত্বিক জরিপ দপ্তরের (ইউএসজিএস) তথ্য অনুযায়ী, বাংলাদেশ সময় বৃহস্পতিবার বিকাল ৫টা ৪৫ মিনিটে এই ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল রিখটার স্কেলে ৫ দশমিক ৯।

 

ভূমিকম্পের উৎস ছিল মিয়ানমারের ফালাম থেকে ৩৮.৫ কিলোমিটার পূর্ব- দক্ষিণ-পূর্বে, ভূপৃষ্ঠের ১০ কিলোমিটার গভীরে।

dhaka

ওই এলাকার অবস্থান বাংলাদেশের ঢাকা থেকে ৩৬১ কিলোমিটার পূর্বে, চট্টগ্রাম থেকে ২১৮ কিলোমিটার পূর্বে, এবং ভারতের মিজোরাম রাজ্যের সাইহা থেকে ১১১ কিলোমিটার পশ্চিম উত্তর-পশ্চিমে।

 

তিন পার্বত্য জেলা, চট্টগ্রামসহ দেশের দক্ষিণাঞ্চলের বিভিন্ন জেলায় এ ভূমিকম্প অনুভূত হওয়ার কথা জানিয়েছেন আমাদের প্রতিনিধিরা। কম্পন টের পাওয়া গেছে রাজধানী ঢাকা থেকেও।

 

তবে তাৎক্ষণিকভাবে হতাহত বা ক্ষয়ক্ষতির কোনো তথ্য আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলোতে আসেনি।

 

সিলেটে হঠাৎ ভূমিকম্প

 

বাংলা নববর্ষ ১৪২৭ – এর সূর্য ওঠার ঘণ্টাখানেক আগে ভয়ঙ্করভাবে কেঁপে উঠল সিলেট ও এর আশপাশের অঞ্চল।

সোমবার দিবাগত রাত ৩টা ৪৩ মিনিটে এ ভূমিকম্প অনুভূত হয়।

তাৎক্ষণিক ভূমিকম্পের উৎপত্তিস্থল এবং রিখটার স্কেলের মাত্রা জানা যায়নি।

এছাড়া কোনো ক্ষয়ক্ষতি বা হতাহতেরও খবর পাওয়া যায়নি।

 

কম্পনটি কয়েক সেকেন্ড স্থায়ী হয়েছিল বলে যুগান্তরকে মোবাইল ফোনে জানিয়েছেন সিলেট উপশহরের অধিবাসী এম.সি কলেজের শিক্ষার্থী আমিনুল শোভন।

 

তিনি বলেন, রাত পৌনে ৪ টার দিকে ভূমিকম্পে ঘরবাড়ি কেঁপে ওঠে। ঘুমের ঘোরে লোকজন আতংকিত হয়ে পড়ে। এ সময় অনেকেই দ্রুত বেরিয়ে আসেন রাস্তায়। একটু ভিন্ন রকম মনে হয়েছে এই ভূমিকম্পকে। সাধারণত ভূমিকম্প হলে ফ্যান, ঝুলন্ত বাতি বা ঘরের আসবাবপত্র কেঁপে ওঠে। কিন্তু এই ভূমিকম্পে মনে হলো ঘরবাড়ির নিচ থেকে মাটি সড়ে যাচ্ছে।

 

ভূমিকম্পের পর পরই সোশ্যাল মিডিয়ায় স্ট্যাটাস দিয়ে আতংকিত না হতে পরামর্শ জানাচ্ছেন সিলেটের বাসিন্দারা।

 

এর আগে সর্বশেষ  ১৯ মার্চ ভয়াবহ ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল সল্ট লেক সিটি, USA

 

ওয়াশিংটন: ভয়াবহ ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের উঠাহ-র সল্টলেক সিটি। স্থানীয় সময় অনুযায়ী বুধবার সকালে এই ভূমিকম্প ঘটেছে। ঘটনায় আতঙ্কিত এলাকাবাসী। রিখটার স্কেলে ভূ-কম্পনের মাত্রা ছিল ৫.৭। ভূমিকম্পের জেরে সাময়িক ভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয় সল্ট লেক আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর। ইউএস জিওলজিক্যাল সার্ভে জানাচ্ছে, সল্ট লেক সিটি থেকে ১০ মেইল দূরে মাগ্না শহরের নিকটবর্তী এলাকায় এই ভূমিকম্পের উৎসস্থল।

 

ভূমিকম্প বুঝতে পেরেই সাধারণ মানুষ বিল্ডিং ছেড়ে রাস্তায় বেরিয়ে পড়েন। জানা যাচ্ছে, ১০ থেকে ১৫ সেকেন্ড স্থায়ী ছিল এই ভূমিকম্প। একটি সূত্রের দাবি, ১৯৯২ এর পর ওই এলাকায় এত বড় ভূমিকম্প আগে হয়নি, ফলে ব্যাপক ভাবে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন স্থানীয়রা। ভূ-কম্পনের তীব্রতা এতই বেশি ছিল যে মাগ্না এলাকায় একাধিক বাড়ির জানলার কাঁচ, ফুলদানি ইত্যাদি ভেঙে পড়ে। এমনকি বেশ কয়েকটি রাস্তার ওপরের অংশে ফাটলও ধরা পড়ে।

 

ঘটনায় কোনও আহত বা নিহত হওয়ার খবর প্রকাশ্যে আসেনি। তবে মূল কম্পনের পর ফের একবার আফটার শক অনুভূত হওয়ায় আতঙ্ক বেড়েছে স্থানীয় মানুষের।

Author

Write A Comment

17 + 2 =

By continuing to use the site, you agree to the use of cookies. more information

The cookie settings on this website are set to "allow cookies" to give you the best browsing experience possible. If you continue to use this website without changing your cookie settings or you click "Accept" below then you are consenting to this.

Close